Wednesday, September 28, 2022

করিমগঞ্জে ৭৬ তম স্বাধীনতা দিবসের প্রস্তুতি সভা : ১৩ থেকে ১৫ আগস্ট ‘হর ঘর তেরঙ্গা’ কার্যসূচীকে সফল করতে আহ্বান

জনসংযোগ, করিমগঞ্জ, ৩০ জুলাই : দেশের স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে সমগ্র দেশ আজাদী কা অমৃত মহোৎসব পালন করছে। তাই এ বছর ৭৬ তম স্বাধীনতা দিবস পালনের গুরুত্ব অপরিসীম। এদিকে এর সঙ্গে সঙ্গতি রেখে ১৩ থেকে ১৫ আগস্ট সমগ্র জেলায় ‘হর ঘর তেরঙ্গা’ কার্যসূচীতে প্রতিটি বাসগৃহ, সরকারি ও বেসরকারি কার্যালয়, ভবন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে তিন দিনব্যাপ জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে।

তাই এবছরের স্বাধীনতা দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের কর্মসূচির স্থির করতে শনিবার করিমগঞ্জের জেলাশাসক কার্যালয়ের সভাকক্ষে জেলাশাসক মৃদুল যাদবের পৌরহিত্যে এক প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এতে বিগত বছরের স্বাধীনতা দিবস পালনের সিদ্ধান্ত পাঠ করেন অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার বিক্রম চাষা।

সভায় জেলাশাসকের নির্দেশে স্বাধীনতা দিবস পালনের কার্যসূচি স্থির করা হয়।

এতে জানানো হয় যে ১৫ আগস্ট সকাল ৬ টায় জেলা তথ্য ও জনসংযোগ বিভাগের স্থায়ী মাইক যোগে দেশাত্মবোধক সঙ্গীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে এই দিবসের সূচনা করা হবে। ব্যক্তিগত গৃহ, ভবন, দোকান ইত্যাদিতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে সকাল ৭টায়। সকাল ৮টায় সরকারি কার্যালয়, ভবন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ইত্যাদিতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে।

এতে কার্যালয় প্রধান ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদেরকে যথাযোগ্য মর্যাদায় কার্যালয়ের কর্মী, ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক-শিক্ষিকা সহযোগে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করতে নির্দেশ দেওয়া হয়।

তারপর থাকছে সকাল ৮ টা ২০ মিনিটে নেতাজি ব্যায়াম সংঘের সদস্য সদস্যাদের জাতীয় পতাকা সহ শহর পরিক্রমা এবং সাড়ে ৮ টায় ডাকবাংলো প্রাঙ্গনে শহীদবিদীতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ।

এদিন জেলার মূল অনুষ্ঠান করিমগঞ্জের সরকারি উচ্চতর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে সকাল ৯ টায় মুখ্য অতিথি কর্তৃক আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে। এরপর থাকছে প্যারেড ও মার্চ পাস্ট এতে বিভিন্ন আধা সামরিক বাহিনী, স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীরা অংশগ্রহণ করবে।

এদিকে এই দিবসের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য দেশাত্মবোধক রচনা, বিতর্ক ও ক্যুইজ প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হবে।

এতে প্রথমে বিদ্যালয় স্তরে তারপর জোনাল পর্যায়ে এবং পরবর্তীতে জেলাভিত্তিক এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে। এতে বিজয়ীদের স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে পুরস্কৃত করা হবে। করিমগঞ্জ পৌরসভা স্বাধীনতা দিবসের এক সপ্তাহ আগে থেকে সমগ্র করিমগঞ্জ শহরে সাফাই অভিযান চালাবে।

এদিকে ‘হর ঘর তেরঙ্গা’ কার্যসূচির অধীনে জেলার প্রতিটি বাসগৃহ, সরকারি ও ব্যক্তিগত ভবন কার্যালয়, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ইত্যাদিতে ১৩ থেকে ১৫ আগস্ট জাতীয় পতাকা উত্তোলন সুনিশ্চিত করতে জেলাশাসক সকলের প্রতি আহ্বান জানান এবং সহযোগিতা কামনা করেন। এতে জনগণ, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সবাইকে সক্রিয় ভূমিকায় এগিয়ে আসতে আহ্বান জানানো হয়।

এই উদ্দেশ্যে জেলার বিভিন্ন স্থানে রাষ্ট্রীয় গ্রামীণ জীবিকা ও নগর জীবিকা মিশনের অধীনে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন থেকে জাতীয় পতাকা তৈরি ও বিক্রয় কেন্দ্র খোলা হয়েছে। এতে সভায় জানানো হয় যে করিমগঞ্জের স্বাধীনতা সংগ্রামী সংস্থার পক্ষ থেকে এই কার্যসূচিকে সফল করে তুলতে জাতীয় পতাকা ক্রয়ে অক্ষম দুঃস্থ ব্যক্তিদের সংস্থা ৫ হাজার পতাকা বিনামূল্যে বিতরণ করবে।

সভায় অংশগ্রহণ করে করিমগঞ্জের পুলিশ সুপার পদ্মনাভ বরুয়া জানান যে জেলার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত এলাকায় জনগণের মধ্যে দেশাত্মবোধক চেতনা গড়ে তুলতে স্বাধীনতা দিবসের আগে ওই এলাকাগুলিতে সচেতনতামূলক শোভাযাত্রার আয়োজন করা হবে।

এদিনের প্রস্তুতি সভায় পাথারকান্দির বিধায়ক কৃষ্ণেন্দু পাল, আসাম রাজ্যিক পরিবহন নিগমের চেয়ারম্যান মিশন রঞ্জন দাস, পৌরপতি রবীন্দ্র চন্দ্র দেব, ডিডিসি বিক্রম দেব শর্মা, জেলা পরিষদের সিইও রুথ লিয়ানথাং, এডিসি জেমস আইন্ড, অ্যাডিশনাল এসপি পার্থ প্রতিম দাস, বিএসএফের অ্যাসিস্ট্যান্ট কমান্ড্যান্ট গুরদ্বীপ সিং, নববার্তা প্রসঙ্গের সম্পাদক হাবিবুর রহমান চৌধুরী, স্বাধীনতা সংগ্রামী সংস্থার সভাপতি অভিজিৎ রায়, বিভিন্ন বিভাগীয় প্রধান, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার কর্মকর্তা ও সংবাদ মাধ্যমের প্রতিনিধিরা অংশগ্রহণ করেন।

Latest Updates

RELATED UPDATES