Tuesday, December 6, 2022

শনবিলে গুচ্ছ উপহার : করিমগঞ্জে বন্যার্তদের পাশে হিমন্ত

শনবিল ও করিমগঞ্জ প্রতিনিধি : শনবিলে 14 solar power project-এ উপরেও লাইট থাকবে আর নিচে ফিশারি চলবে ও সিংলা নদীতে ২টি স্লুইস গেট বসানো হবে এমনই আশার বাণী শুনালেন অসমের মুখ্যমন্ত্রী ড. হিমন্তবিশ্ব শর্মা৷

শুক্রবার প্রায় ১১:১০ মিনিটে শনবিলের গামারিয়া জিপি অফিসের নিকটে অস্থায়ী মাঠে হেলিকপ্টারে পদার্পণ করেন৷ প্রথমে শনবিল সুভাষ হাইস্কুলে বন্যাপ্লাবিত এলাকার শরনার্থীদের খোঁজখবর নেন৷ তারপর শনবিলের শ্রীরামপুর, পাঁচটেকি ইত্যাদি বন্যা কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন৷

তিনি সংবাদ মাধ্যমে জানান, জেলার ৩ লক্ষ ৯০ হাজার মানুষ বন্যা কবলিত৷ সমগ্র অসমে ১ কোটির অধিক দুর্গতদের আমি যেভাবে পারি সাহায্য করবো৷

তিনি প্রতিটি বিভাগীয় আধিকারিকদের নির্দেশ দেন, ক্ষয়ক্ষতির রিপোর্ট শীঘ্রই জমা দেওয়ার জন্য৷ যাদের ঘর পুরো নষ্ট হয়েছে তাদেরকে ৯৫,০০০ টাকা, যাদের অল্প সংখ্যক নষ্ট হয়েছে তাদেরকে সামান্য পরিমাণে সাহায্য দেওয়া হবে৷ বন্যার পর শরণার্থীদের শিবির ছেড়ে যাওয়ার জন্য হাতখরচ বাবদ কিছু টাকা দেওয়া হবে, স্কুল ছাত্রছাত্রীদের শিখন সামগ্রী কেনার জন্য সামান্য টাকা দেওয়া হবে বলে তিনি জানান৷

এদিকে, জেলাশাসককে নির্দেশ দেন ফিশারির ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ তদন্ত ক্রমে রিপোর্ট জমা দেওয়ার জন্য৷ বলেন, শনবিলে আবার আসব জল কমলে পরে৷ রাতাবাড়ির বিধায়ক বিজয় মালাকার শনবিল তথা তার এলাকার বন্যায় ক্ষয়ক্ষতির সব ধরনের সহযোগিতা করে যাবেন বলে কথা দেন৷

Latest Updates

RELATED UPDATES